প্রচ্ছদ

লন্ডনের টাওয়ার হ্যামলেটসের কাউন্সিলর কবি শাহ সোহেল প্রতিষ্ঠা করলেন পিতার নামে মাদরাসা

  |  ১৫:৫৪, জানুয়ারি ১১, ২০২১
www.adarshabarta.com

 

সিলেট অফিস:

কারিগরি এবং কর্মমূখী শিক্ষাকে প্রাধান্য দিয়ে লন্ডনের টাওয়ার হ্যামলেটসের কাউন্সিলর গীতিকার কবি শাহ সোহেল আমিন প্রতিষ্ঠিত শাহ আমিন উল্লাহ মাদরাসা হিফজ ও এতিমখানার উদ্বোধন করা হয়েছে।

শনিবার বিশ্বনাথের ইলামেরগাওয়ে সমাজসেবী রাজনীতিবিদ আলহাজ¦ পংকি খানের সভাপতিত্বে ও রামপাশা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান এডভোকেট মোঃ আলমগীর হোসেনের পরিচালনায় আয়োজিত অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন সিলেট-২ আসনের সাবেক এম.পি আলহাজ¦ শফিকুর রহমান চৌধুরী।

উদ্বোধন করেন বাংলাদেশ জমিয়তুল মোদাররিসিনের কেন্দ্রীয় যুগ্ম মহাসচিব, কামাল বাজার ফাজিল মাদরাসার প্রিন্সিপাল মাওলানা মুফতি এ.কে.এম মনোওর আলী।

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন বিশ^নাথ থানা অফিসার্স ইনচার্জ মোঃ শামীম মুসা, বিশ^নাথ সদর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মোঃ ছয়ফুল হক, বিশ^নাথ কামিল মাদরাসার প্রিন্সিপাল মাওলানা নুমান আহমদ, দৌলতপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আমির আলী, রাজনীতিবিদ ফারুক আহমদ।

বক্তারা বলেন, কাউন্সিলর শাহ সোহেল আমিন দেশ মাতৃকার টানে বার বার নিজ জন্মভুমিতে আসেন। নিজ এলাকার উন্নয়নের স্বপ্ন দেখেন। এলাকার উন্নয়ন ও ভবিষ্যত প্রজন্ম যাতে ধমীয় ও নৈতিক শিক্ষার পাশাপাশি কর্মমূখী শিক্ষায় শিক্ষিত হয়ে নিজের পায়ে দাড়াতে পারে সেই স্বপ্ন থেকেই এই কর্মমূখী মাদরাসা প্রতিষ্ঠা করেছেন। আমরা এই উদ্যোগকে স্বাগত জানাই। অভিনন্দন জানাই। বক্তারা এ উদ্যোগে সব ধরনের সহযোগিতার প্রতিশ্রুতি প্রদান করেন।

তারা আরও বলেন, এই ধরনের ব্যতিক্রম একটি প্রতিষ্ঠান প্রতিষ্ঠায় সকলেরই সহযোগিতায় এগিয়ে আসা প্রয়োজন। পাশাপাশি আরও এ ধরনের প্রতিষ্ঠান প্রতিষ্ঠায় সমাজসেবী ও প্রবাসীদের এগিয়ে আসা উচিত।

শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন ও মাদরাসা প্রতিষ্ঠার প্রেক্ষাপট তুলে ধরেন মাদরাসার প্রতিষ্ঠাতা লন্ডনের টাওয়ার হ্যামলেটসের কাউন্সিলর গীতিকার কবি শাহ সোহেল আমীন।

বক্তব্যে কবি শাহ সোহেল আমীন বলেন, এটা বাংলাদেশে একটি ব্যতিক্রম উদ্যোগ। এই মাদরাসার শিক্ষাব্যবস্থা অনেকেই অনুসরন করবেন বলে আমরা মনে করি। এভাবে দেশের সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে প্রচলিত শিক্ষার পাশাপাশি কারিগরি ও কর্মমূখী শিক্ষার ব্যবস্থা করলে বাংলাদেশের ভবিষ্যত প্রজন্মের মধ্যে আর কেহ বেকার থাকবেনা।

তিনি আরও বলেন, আমরা সারা জীবন জন্মদাতার সেবা করলেও তাদের ঋন শোধ করা সম্ভব নয়।  জন্মদাতার স্মৃতিকে চিরস্মরণীয় করে রাখতে আমি আমার জন্মদাতার নামে প্রতিষ্ঠানটি প্রতিষ্ঠার উদ্যোগ নিয়েছি। এভাবে সকল বিত্তবানরা এগিয়ে আসলে নিজ জন্মদাতার দায় কিছুটা হলেও শোধ করা সম্ভব।

অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন কবি শাহ সোহেল আমীনের পিতা সাবেক কৃতি ফুটবলার শাহ আমিন উল্লাহ, বিশ^নাথ উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক কমান্ডার মোঃ তৈয়ব আলী, রাজনীতিবিদ সমাজসেবী আব্দুল রুসন চেরাগ আলী, স্থানীয় ইউপি সদস্য ইসহাক আলী প্রমূখ। এছাড়া অনুষ্ঠানে স্থানীয় প্রিন্ট ও ইলেক্ট্রনিক মিডিয়ার সাংবাদিক নেতৃবৃন্দ, বিভিন্ন সামাজিক সাংস্কৃতিক ও রাজনৈতিক সংগঠনের নেতৃবৃন্দ, এলাকার মুরব্বীয়ান ও বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ও উক্ত মাদরাসার শিক্ষকবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।